চুল পড়া কমানোর উপায় কি? ডায়েট করতে গিয়ে চুলের বেহাল দশা - মায়া

চুল পড়া কমানোর উপায় কি? ডায়েট করতে গিয়ে চুলের বেহাল দশা

চুল পড়া এখন অনেকেরই বড় সমস্যা হয়ে দাড়িয়েছে। হালের সবচেয়ে জনপ্রিয় ডায়েটিং হল কিটো ডায়েট। কিটো ডায়েটের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া গুলো সম্পর্কে না জেনে এর জনপ্রিয়তা দেখে অনেকেই কোন ডায়েটেশিয়ানের পরামর্শ ব্যতীত স্বপ্রণোদিত হয়ে ডায়েট শুরু করেন। ফলস্বরূপ, ক্লান্তি, কোষ্ঠকাঠিন্য, এবং বমি বমি ভাব এর মত কিছু পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার পাশাপাশি বোনাস হিসেবে চুল পড়া এর মত কিছু সমস্যা দেখা যায়। চুল পড়া থেকে বাঁচার উপায় জানতে মায়াতে আমরা অসংখ্য প্রশ্ন পেয়ে থাকি। এক্ষেত্রে মায়ার এক্সপার্টদের পরামর্শ জানতে বিস্তারিত পড়তে থাকুন।  

কিটো ডায়েট কি?  

কিটোজেনিক ডায়েট হল লো-কার্ব এবং উচ্চ ফ্যাট সমৃদ্ধ ডায়েট যাতে শরীরকে কিটোসিস অবস্থায় নিয়ে যাওয়া হয় যেন, শরীর শক্তির উৎস হিসেবে কার্বোহাইড্রেট না ব্যবহার করে জমানো ফ্যাটকে ক্ষয় করে ব্যবহার করে। এ ডায়েটে অনেক প্রয়োজনীয় খাবার যেমন- শস্য জাতীয় খাবার, অনেক ধরনের ফল এবং শাক সবজি  খাবার বিষয়ে  সীমাদ্ধতা দেয়া থাকে। এ ডায়েটে প্রোটিনের পরিমাণ ও নির্দিষ্ট করা থাকে । 

চুল পড়ার কারণ 

কিটো ডায়েট কিংবা অন্য ডায়েটে অনেক খাবার ব্যাপারে সীমাবদ্ধতা থাকে। কারও কারও ক্ষেত্রে অনেক প্রয়োজনীয় পুষ্টিচাহিদা অপূর্ণ থেকে যায় এবং চুল পড়ার মত নানা জটিলতা দেখা যায়। 

নিচে কিটো ডায়েটের ফলে চুল পড়ার কিছু সম্ভাব্য কারণ সম্পর্কে আলোচিত হল- 

প্রয়োজনের তুলনায় খুব কম ক্যালরি গ্রহণ 

কিটো ডায়েটে উচ্চ মাত্রায় ফ্যাট গ্রহণ করে আপনার ক্ষুধাভাব কমে যেতে পারে। হঠাৎ করে শরীরে ক্যালরি গ্রহণের মাত্রা কমে যাওয়ায় শরীরে একধরণের শক তৈরীর বিরুপ প্রভাব স্বরূপ আপনার চুল পড়ার পরিমাণ বেড়ে যেতে পারে। 

পর্যাপ্ত পরিমাণ প্রোটিন গ্রহণ না করলে 

অনেকেই কিটো ডায়েট করতে গিয়ে ফ্যাট গ্রহণের দিকে বেশি মনযোগী হতে গিয়ে পর্যাপ্ত প্রোটিন গ্রহণ করেন না। শরীরকে কিটোসিস অবস্থায় ধরে রাখতে হলে আপনার প্রোটিন গ্রহণের পরিমাণ সীমিত করতে হবে। ডার্মাটোলজি অ্যান্ড থেরাপি জার্নালে ডিসেম্বর ২০১৮ এ প্রকাশিত একটি গবেষণায় উল্লেখ করা হয়েছে যে, একজন মানুষের মাথায় ১০০,০০০ হেয়ার ফলিক্যাল রয়েছে, যার মধ্যে ৯০ শতাংশ বৃদ্ধির পর্যায়ে থাকে, তাই চুলের সুস্বাস্থ্য বজায় রাখতে ও চুল পড়া রোধে পর্যাপ্ত প্রোটিন, ভিটামিন এবং খনিজ প্রয়োজন।এ সমস্ত পুষ্টি উপাদানের অভাবে আপনার চুল পড়া বেড়ে যাওয়াটা স্বাভাবিক।    

কিটোসিসের কারণে খুব দ্রুত ওজন কমালে 

খুব দ্রুত ওজন কমে (অনেকসময়ই অস্থায়ী) বলে কিটো ডায়েটের জনপ্রিয়তা খুব বেশি। ডার্মাটোলজি প্র্যাকটিকাল অ্যান্ড কনসেপ্টুয়াল-এ জানুয়ারীতে প্রকাশিত একটি সমীক্ষায় উল্লেখ করেছে যে, খুব দ্রুত ওজন কমানো এবং খাদ্যতালিকায় প্রোটিনের পরিমাণ কমিয়ে ফেলার স্ট্রেস টেলোজেন এফ্লুভিয়াম (টিই) নামক রোগ সৃষ্টিতে অবদান রাখতে পারে। ডায়ারনেট এনজেড-এ প্রকাশিত একটি নোটে বলা হয়, টিই চুল বৃদ্ধি পর্যায় যখন থেকে থাকে তখন সংঘটিত হলে অস্থায়ী ভাবে চুল পড়ার কারণ হতে পারে। কিটো ডায়েট অথবা অন্য কারণ (যেমন- গর্ভকালীন ও গর্ভ পরবর্তী) যে দীর্ঘ মানসিক চাপ সৃষ্টি হয় তার ফলে মানুষের চুল পড়ার সমস্যা বেড়ে যায়। তবে এর নির্দিষ্ট কারণ সম্পর্কে এখনও জানা যায় নি। 

ডায়েটের ফলে স্বাস্থ্যজ্জ্বল চুলের জন্য প্রয়োজনীয় পুষ্টি উপাদানের ঘাটতি হলে 

স্বাস্থ্যজ্জ্বল, ঘন, রেশমি চুলের জন্য একটি অত্যাবশ্যক উপাদান হলে বি ভিটামিন বায়োটিন। ধারণা করা (তবে শক্ত কোন রেফারেন্স নেই) হয় যে, কিটো ডায়েটের ফলে অনেকের শরীরে বায়োটিনের ঘাটতি হয় ফলে চুল পড়া সমস্যা দেখা যায়। 

ডায়েটের ফলে চুল পড়া রোধের উপায় 

  • চুল পড়া রোধে সহায়তার জন্য, কোনও সম্ভাব্য ঘাটতি পূরণ করতে ডাক্তারের পরামর্শ মোতাবেক মাল্টিভিটামিন গ্রহণ করতে পারেন যেন সাধারণ পুষ্টি চাহিদাগুলো পুরণ হয়। 
  • ডিম এবং হাঁস-মুরগির মতো উচ্চমানের উৎস থেকে আপনার প্রয়োজনীয় প্রোটিন গ্রহণ করুন। 
  • চুল পড়া রোধে বাদাম, পেঁয়াজ, টমেটো, আখরোট, সালমন, কুমড়োর বীজ এবং কাজু জাতীয় খাবারগুলি থেকে বায়োটিন ঘাটতি পুরণ করতে পারেন।
  • যদি আপনি ইতিমধ্যে অনেক চুল হারিয়ে থাকেন, তবে অবশ্যই একজন পুষ্টিবিদের পরামর্শ নিন। এক্ষেত্রে, মায়ার পুষ্টিবিদের পরামর্শ আপনি ঘরে বসেই নিতে পারেন। 
  •  আপনি যদি ওজন হ্রাস করতে চান এবং কিটো ডায়েট করতে গিয়ে এর পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া অনুভব করেন, তবে একজন ডায়েটিশিয়ান এর পরামর্শ মতে আপনার উপযোগী অন্য ধরনের ডায়েট গ্রহণ করুন। আরও অন্যান্য স্বাস্থ্যকর উপায়েও আপনি ওজন কমাতে পারবেন।   
  • চুল পড়া রোধে রাতে পর্যাপ্ত ঘুম, প্রচুর পানি পান, ধূমপান ত্যাগ ইত্যাদি এর মত ভালো অভ্যাসগুলো চর্চা করুন। অর্থাৎ, একটি স্বাস্থ্যকর জীবনযাত্রা অনুসরণ করে চলুন। 

চুল পড়া, অতিরিক্ত ওজন ইত্যাদি সংক্রান্ত যে কোন এক্সপার্ট পরামর্শের জন্য মায়া অ্যাপটি ইন্সটল করে প্রশ্ন করুন। মায়ার সাবস্ক্রিপশন প্যাক কিনে দ্রুত পরামর্শ নিশ্চিত করতে পারেন। নতুন নতুন তথ্য পেতে নিয়মিত চোখ রাখুন আমাদের ব্লগে।

Leave a Reply