পারিবারিক নির্যাতনে কিভাবে কাছের কাউকে সাহায্য করবেন?

এটা অনেক কঠিন হবে আপনার বন্ধুকে কিছু করা অথবা বলা সে হয়ত এই বিষয়ে কথা বলতে চাইবেনা, কিন্তু আপনি তাকে জানান যে আপনি অস্বাভাবিক কিছু লক্ষ্য করেছেন। তাকে কথা বলার সাহস দিন। যদি সে না বলতে চায় তবে অপেক্ষা করুন এবং এই বিষয়ে অন্য সময়ে তার সাথে কথা বলুন।
কাউকে সমর্থন করতে কিছু পর্যায় আছে এখানে যা আপনি নিতে পারেন  যে আপনাকে ভরসা করে বলবে যে তারা পারিবারিক সহিংসতার মধ্যে রয়েছে।
তার কথা শুনুন, এবং তার খেয়াল রাখুন তাকে নিন্দা করবেননা। তাকে বোঝান তার মত অনেক মহিলা রয়েছে যারা একই পরিস্থিতির মধ্যে থাকে।
স্বীকার করা হয় যে, কারো সাথে সহিংসতা সম্পর্কে কথা বলার জন্য শক্তি প্রয়োজন। তাকে কথা বলার সময় দিন, কিন্তু সে যদি না চায় তাকে সেটা বলার জন্য চাপ দিবেন না।
আপনাকে বুঝতে হবে যে সে আতঙ্কগ্রস্থ ও কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে।

  • তাকে বোঝান কেউ ভয়ের অথবা প্রহার, অবজ্ঞার যোগ্য নয়, যা তাকে দুর্ব্যবহারকারী বোঝাতে চায়। সে কিছুই করেনা অথবা বলেনা তাই অপব্যবহারকারী তার আচরণ যথার্থ মনে করে।
  • বন্ধু হিসেবে তাকে সমর্থন করুন। তার অনুভূতি সমূহ ব্যাক্ত করার সাহস দিন এবং তাকে নিজের সিদ্ধান্ত নিতে বলুন।
  • যদি সে  ঐ সম্পর্ক ত্যাগ করতে প্রস্তুত না থাকে তবে তাকে তা ত্যাগ করতে বলবেন না। এটাই তার সিদ্ধান্ত।
  • যদি সে কোন শারীরিক ক্ষতি ভোগ করে থাকে তাকে তা জিজ্ঞাসা করুন । যদি তাই হয়, তবে তাকে সাথে নিয়ে হাসপাতালে অথবা ডাক্তারের কাছে যান।  
  • যদি সে চায় তবে পুলিশের কাছে এ বিষয়ে রিপোর্ট করতে তাকে সাহায্য করুন।
  • প্রস্তুত থাকুন, যারা সাহায্য করে এমন প্রতিষ্ঠান সমূহে তথ্য দিন।

যারা যৌন নির্যাতন এর শিকার হয়েছেন এখানে ব্যক্তিগত সাহায্য এবং সমর্থন পাবেন। এটি এমন একটি ব্লগ যেখানে আপনি নামবিহীন ভাবে সব কিছু বলতে ও শেয়ার করতে পারেন। আপনারা আমাদের বৈধ ও দক্ষ কর্মীদের সাহায্যও পেতে পারেন এবং প্রশ্নও করতে পারেন। আপনি অন্যান্য প্রতিষ্ঠানে যোগাযোগ করতে পারেন যারা এ বিষয়ে সাহায্য করে থাকে এবং মেডিকেল ও বৈধ সমর্থন দিয়ে থাকে।
 
মায়া বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে মায়া এন্ড্রয়েড এপ ডাউনলোড করুন এখান থেকে: https://bit.ly/2VVSeZa

Leave a Reply