রোদের তাপ থেকে ত্বকের সুরক্ষা - মায়া

রোদের তাপ থেকে ত্বকের সুরক্ষা

রোদের তাপ থেকে ত্বকের সুরক্ষা
সূর্যের অতিবেগুনী রশ্মি থেকে ত্বককে রক্ষা করা খুব গুরুত্বপূর্ণ। এতে করে ত্বকে ক্যান্সারের ঝুঁকি কমানো যায়। সূর্যের অতিবেগুনি রশ্মি ত্বকের ভেতর ঢুকে গেলে এবং ত্বক-এর কোষগুলোর ক্ষতি করলে সেটাকে সান ড্যামেজ বলে। আপনি হয়তো এটা টেরও পাবেন না এবং এমনকি রোদের তাপ খুব বেশি না থাকলেও এটা ঘটতে পারে। এটা ত্বকের ক্যান্সারের ঝুঁকি বাড়ায় এবং ত্বকের স্বাভাবিক বুড়িয়ে যাওয়ার প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত করে।

শরীর সুস্থ রাখার জন্য প্রত্যেকেরই কমবেশি সূর্যের আলো দরকার , কিন্তু অতিবেগুনী রশ্মির বিকিরণ বেশিক্ষণ থাকলে রোদে ত্বক পুড়ে যাওয়া , তাড়াতাড়ি বুড়িয়ে যাওয়া এমনকি ত্বকের ক্যান্সারও হতে পারে। ত্বকের সুরক্ষার জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ যে কাজটি আপনি করতে পারেন তা হলো ত্বককে রোদে পুড়তে না দেয়া। সকাল ১০টা থেকে ৩টা পর্যন্ত সময়ে সূর্যের তাপ যখন সবচেয়ে প্রখর থাকে, তখন আপনি ছায়াযুক্ত স্থানে থেকে নিজেকে রোদের তাপ থেকে রক্ষা করতে পারেন। অথবা আপনি শরীরকে আবৃত রেখে, সানগ্লাস বা ছাতা নিয়ে কিংবা ত্বকের অনাবৃত অংশে সানস্ক্রিন লাগিয়ে রোদের তাপ থেকে সুরক্ষা পেতে পারেন।


সঠিকভাবে সানস্ক্রিন ব্যবহার
সানস্ক্রিন ব্যবহারের বেলায় উদার হোন। আপনার সানস্ক্রিন যত ভালো আর দামিই হোক না কেন, ঠিকভাবে ব্যবহার করতে না পারলে তা কোনো কাজে দেবে না। যদি আপনি যথেষ্ট পরিমাণ সানস্ক্রিন ব্যবহার না করেন, তাহলে আপনি সেই ফলাফল পাবেন না, যেটা বোতলের গায়ে বা বিজ্ঞাপনে লেখা আছে। ত্বকের যেসকল অংশে রোদ পড়বেই, যেমন পায়ের সামনের অংশ, কান এবং ঘাড়-এ অবশ্যই ভালোভাবে সানস্ক্রিন লাগান।

আপনাকে যা যা করতে হবে –

এমন সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন যার এসপিএফ বা সান প্রটেক্টর ফ্যাক্টর (SPF, Sun Protector Factor) ১৫ বা তার বেশি।

এমন সানস্ক্রিন বাছাই করুন যাতে ‘ব্রড স্পেকট্রাম’ লেবেল এবং ৪/৫টি তারকা সম্বলিত স্টার রেটিং দেয়া আছে। এর মানে হলো যে এই সানস্ক্রিন ইউভি-এ (UV-A) এবং ইউভি-বি(UV-B) দুই ধরণের রশ্মি থেকেই সুরক্ষা দেয়।

  • পরিষ্কার, শুষ্ক ত্বকে সানস্ক্রিন লাগান।
  • আপনার মাথা, হাত এবং ঘাড়ের জন্য অন্তত দুই চা-চামচ পরিমাণ সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন।
  • আপনার ত্বকের সকল খোলা অংশের জন্য অন্তত দুই টেবিল চামচ পরিমাণ সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন।
  • অন্তত প্রতি দুই ঘণ্টায় একবার করে অনাবৃত অংশগুলোতে সানস্ক্রিন লাগান, কারণ হাত-পা ধোয়া, ঘাম কিংবা ঘষার কারণে সানস্ক্রিন উঠে যেতে পারে।
  • গায়ে পানি লাগালে আবারো অনাবৃত অংশগুলোতে সানস্ক্রিন লাগান, সানস্ক্রিনের গায়ে যতই ‘ওয়াটার প্রুফ’ লেখা থাকুক না কেন।
  • সানস্ক্রিন লাগানোর পাশাপাশি শরীরকে আবৃত রাখুন আর ছায়ার নিচে থাকুন, যাতে কোনোভাবেই ত্বক পুড়ে না যায়।
  • সানস্ক্রিন ছাড়া আপনি যেটুকু সময় রোদে থাকতেন, তার বেশি সময় থাকার কথা ভাববেন না মোটেই।
  • সানস্ক্রিনের গায়ে মেয়াদোত্তীর্ণের তারিখটি দেখে নিন ভালো করে। যদি মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে যায় তাহলে সেই সানস্ক্রিন একদমই ব্যবহার করবেন না।


ত্বকের গাঢ় বর্ণ – একটি আশীর্বাদ
আমরা সবসময়ই ভেবে থাকি যে ফর্সা মানেই সুন্দর আর কালো বা শ্যামলা মানেই অসুন্দর। আর সেই ধারণার ফলশ্রুতিতেই আজকে এতরকম ত্বক ফর্সা করার পণ্য বাজারে রয়েছে। কিন্তু আপনি কি জানেন, আপনার যে শ্যামলা বা কালো ত্বক নিয়ে আপনি এত অস্বস্তিতে আছেন, সেটাই আপনাকে রোদ থেকে বেশি সুরক্ষা দিচ্ছে? গাঢ় বর্ণের মানুষের ত্বকের ক্যান্সার হবার ঝুঁকি তো কমই, সূর্যের অতিবেগুনী রশ্মির প্রভাব তাদের ক্ষতিও করে কম। যেই মেলানিন পিগমেন্ট এর জন্য আপনার গায়ের রং কালো, সে-ই আপনার ত্বককে রক্ষা করতে ভূমিকা পালন করে এবং আপনার ত্বকের ক্ষতি হবার ঝুঁকি কমায়।

***মায়ার সাথে থাকুন, সুস্থ থাকুন***
শারীরিক, মানসিক, লাইফস্টাইল বিষয়ক সমস্যায় প্রশ্ন করুন Maya অ্যাপ থেকে।
অ্যাপের ডাউনলোড লিঙ্কঃ http://bit.ly/2WkzaYR